Revolutionary democratic transformation towards socialism

কমরেড জসীম মণ্ডল-এর স্মরণসভায় কমরেড সেলিম পচে গলে যাওয়া বিদ্যমান সমাজ ভাঙতেই হবে


সাম্রাজ্যবাদবিরোধী সংগ্রামের বীর সেনানী, একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক, মেহনতি মানুষের মুক্তি-সংগ্রামের মহানায়ক কমরেড জসীম উদ্দীন মণ্ডল-এর দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকীতে আজ ২ অক্টোবর ২০১৯, বুধবার, বিকেল ৫টায় স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) কেন্দ্রীয় কমিটির উদ্যোগে ঢাকার মুক্তিভবনে মৈত্রী মিলনায়তনে স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়। স্মরণসভায় সভাপতির বক্তব্যে কমরেড মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম বলেন, কমরেড জসীম উদ্দীন মণ্ডল সবসময় বলতেন আমাদের প্রচলিত সমাজ পচা-গলা এক সমাজ এবং এই সমাজ ভাঙতেই হবে। তিনি শোষণমুক্ত সমাজ নির্মাণের স্বপ্ন আজীবন লালন করেছেন। তার সেই স্বপ্ন বাস্তবায়নের লড়াইয়ে অবিচল থাকার মধ্য দিয়ে আমরা তার প্রতি প্রকৃত শ্রদ্ধা নিবেদন করতে পারবো। তিনি আরো বলেন, আমাদের পার্টির সামনে উপস্থিত

কর্তব্য পালন করতে এবং কমরেড জসীম মণ্ডলের স্বপ্নসাধ বাস্তবায়নের লড়াইয়ে বিজয়ী হতে হলে আমাদের তাঁর দেখানো পথে অগ্রসর হতে হবে। তিনি বলেন, আগামীদিনের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় ব্যাপকভাবে শ্রমিক, তরুণ-যুব এবং নারীদের পার্টিতে সংগঠিত করতে হবে। আন্দোলন সংগ্রামের অগ্নিপরীক্ষার মধ্য দিয়ে কমরেড জসিম মণ্ডলের জীবনাদর্শের অনুসারী কর্মীবাহিনী গড়ে তুলতে হবে। তিনি কমরেড জসীম উদ্দীন মণ্ডলের দেখানো পথে এদেশের শ্রমিক মেহনতি মানুষের লড়াই সংগ্রাম অগ্রসর করে বিপ্লবের মাধ্যমে নতুন সমাজ গড়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। সিপিবি’র সভাপতি কমরেড মুজাহিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত স্মরণসভায় বক্তব্য রাখেন পার্টির সাধারণ সম্পাদক কমরেড মোহাম্মদ শাহ আলম, সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য কমরেড শাহীন রহমান, কোষাধ্যক্ষ মাহাবুবুল আলম, কেন্দ্রীয়

নেতা সাদেকুর রহমান শামীম, লুনা নূর, রেল শ্রমিকনেতা আব্দুল মান্নান, হকারনেতা সেকেন্দার হায়াৎ, নুরুল ইসলাম গাজী প্রমুখ। সভাটি পরিচালনা করেন সিপিবি’র কেন্দ্রীয় নেতা কাজী রুহুল আমিন। স্মরণসভার শুরুতে কমরেড জসিম উদ্দীন মণ্ডল-এর স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে দাঁড়িয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। স্মরণসভায় অন্যান্য বক্তারা বলেন, কমরেড জসীম উদ্দীন মণ্ডল একজন ত্রিকালদর্শী বিপ্লবী। তিনি ব্রিটিশবিরোধী স্বাধীনতা সংগ্রামের একজন বীর সেনানী, একাত্তরের মহান মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক, এই ভূখণ্ডের সকল গণতান্ত্রিক আন্দোলনের সংগ্রামী নেতা, সর্বোপরি এদেশের শ্রমিক মেহনতি মানুষের মুক্তি সংগ্রামের কিংবদন্তী মহানায়ক। এমন বিপ্লবী’র কখনো মৃত্যু হয় না। কমরেড জসীম উদ্দীন মণ্ডল তার কর্ম এবং আদর্শের মাঝে বেঁচে থাকবেন।

Print প্রিন্ট উপোযোগী ভার্সন

Login to comment..