কমরেড জসিম উদ্দিন মণ্ডলের প্রতি জাতির শেষ শ্রদ্ধা নিবেদন তাঁর আদর্শের পথ ধরেই বিপ্লবী আন্দোলন এগিয়ে যাবে

Posted: 03 অক্টোবর, 2017

ব্রিটিশবিরোধী আন্দোলনের অন্যতম সংগঠক, মহান মুক্তিযুদ্ধের বীর সেনানী, এ দেশের শ্রমিক আন্দোলনের কিংবদন্তী, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)’র কেন্দ্রীয় কমিটির উপদেষ্টা, বর্ষীয়ান কমিউনিস্ট নেতা কমরেড জসিম উদ্দিন মণ্ডলের প্রতি আজ ৩ অক্টোবর জাতির পক্ষ থেকে শেষ শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়। সকালে বারডেম-এর হিমঘর থেকে কমরেড জসিম উদ্দিন মণ্ডলের মরদেহ সিপিবি’র কেন্দ্রীয় অফিস মুক্তিভবনে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে সিপিবি’র কেন্দ্রীয় কমিটিসহ বিভিন্ন কমিটি, বিভিন্ন গণসংগঠনের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করা হয়। সিপিবি’র সভাপতি কমরেড মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম ও সাধারণ সম্পাদক কমরেড মো. শাহ আলম সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন। কমরেড সেলিম বলেন, কমরেড জসিম মণ্ডলের মৃত্যুতে কমিউনিস্ট আন্দোলনের এক সূর্য অস্তমিত হলো। আজীবন বিপ্লবী কমরেড জসিম উদ্দিন মণ্ডল তরুণদের স্বপ্নের নায়ক। তিনি হাজার হাজার তরুণকে কমিউনিস্ট আদর্শ ও আন্দোলনে উদ্বুদ্ধ করেছেন। তাঁর দেখানো আদর্শের পথ ধরেই শ্রমিক শ্রেণি বিপ্লবী আন্দোলনকে এগিয়ে নেবে। মুক্তিভবনে সিপিবি’র নেতা-কর্মীরা কমিউনিস্ট ইন্টারন্যাশনাল গেয়ে কমরেড জসিম মণ্ডলকে বিদায় দেন। সেখান থেকে নেতা-কর্মীরা শোক র‌্যালি করে তাঁর মরদেহ নিয়ে ১১ টায় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে পৌঁছান। শহীদ মিনারে তাঁকে রাষ্ট্রীয়ভাবে গার্ড অব অনার দেওয়া হয়। এরপর বিভিন্ন দল, সংগঠন ও ব্যক্তির পক্ষ থেকে শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করা হয়। সিপিবি’র কেন্দ্রীয় কমিটিসহ বিভিন্ন জেলা ও উপজেলা কমিটি ছাড়াও শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করে অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর নেতৃত্বে অক্টোবর বিপ্লবের শতবর্ষ উদযাপন কমিটি, মতিয়া চৌধুরী, নূরুল ইসলাম নাহিদ, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, অসীম কুমার উকিল, আফজালুর রহমানের নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ, মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, নজরুল ইসলাম খান, আব্দুল্লাহ আল নোমানের নেতৃত্বে বিএনপি, ফজলে হোসেন বাদশার নেতৃত্বে ওয়ার্কার্স পার্টি, খালেকুজ্জামানের নেতৃত্বে বাসদ, হাসানুল হক ইনু ও শিরিন আক্তারের নেতৃত্বে জাসদ, শরীফ নূরুল আম্বিয়ার নেতৃত্বে জাসদ, সাইফুল হকের নেতৃত্বে বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি, দিলীপ বড়ুয়ায় নেতৃত্বে সাম্যবাদী দল, ইসমাইল হোসেনের নেতৃত্বে ন্যাপ, জোনায়েদ সাকির নেতৃত্বে গণসংহতি আন্দোলন, অধ্যাপক আব্দুস সাত্তারের নেতৃত্বে ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগ, মোশরেফা মিশুর নেতৃত্বে গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টি, আমিরুন নূজহাত মণীষার নেতৃত্বে জাতীয় গণফ্রন্ট, নাসির উদ্দিন নাসুর নেতৃত্বে গণমুক্তি ইউনিয়ন, অ্যাড. সুব্রত চৌধুরীর নেতৃত্বে গণফোরাম, অ্যাড. এস এম সবুর ও আসাদুল্লাহ তারেকর নেতৃত্বে ঐক্য ন্যাপ, মাহমুদুর রহমান বাবু ও ডা. শাহাদাৎ হোসেনের নেতৃত্বে গণতন্ত্রী পার্টি, নূর মোহাম্মদ তালুকদারের নেতৃত্বে সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন, শাহরিয়ার কবিরের নেতৃত্বে ৭১-এর ঘাতক-দালাল নির্মূল কমিটি, অধ্যাপক আনু মুহাম্মদের নেতৃত্বে তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটি, কামাল লোহানী ও ড. সফিউদ্দিন আহমেদের নেতৃত্বে উদীচী, অধ্যাপিকা মাহফুজা খানমের নেতৃত্বে কেন্দ্রীয় খেলাঘর আসর, হায়দার আনোয়ার খান জুনোর নেতৃত্বে গণসংস্কৃতি ফ্রন্ট, গোলাম কুদ্দুসের নেতৃত্বে সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট, মামুনুর রশীদ ও মান্নান হীরার নেতৃত্বে আরণ্যক, আজাদ আবুল কালাম পাভেলের নেতৃত্বে প্রাচ্যনাট শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করে। কমরেড জসিম মণ্ডলের প্রতি আরও শ্রদ্ধা নিবেদন করে ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্র, রেল শ্রমিক ইউনিয়ন, গণতান্ত্রিক বাম মোর্চা, কৃষক সমিতি, ক্ষেতমজুর সমিতি, ছাত্র ইউনিয়ন, যুব ইউনিয়ন, সন্ত্রাস নির্মূল ত্বকী মঞ্চ, বিশ্ব শিক্ষক সমিতি ফেডারেশন, মহিলা পরিষদ, গণতান্ত্রিক আইনজীবী সমিতি, কৃষিবিদ ইউনিয়ন, ইঞ্জিনিয়ার্স অ্যান্ড আর্কিটেক্টস ফর এনভায়রনমেন্ট ডেভলপমেন্ট, ট্যানারী ওয়ার্কার্স ইউনিয়ন, মণি সিংহ-ফরহাদ ট্রাস্ট, প্রগতিশীল ছাত্র জোট, সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট, ছাত্র ঐক্য ফোরাম, নতুন দিগন্ত, প্রগতি লেখক সংঘ, নিজেরা করি, জনউদ্যোগ, আদিবাসী যুব পরিষদ, মুক্তিসংগ্রাম জাদুঘর, জাতীয় শ্রমিক জোট, যুব মৈত্রী, সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়ন, শিক্ষা বার্তা, জাতীয় শ্রমিক জোট, জাতীয় কৃষক সমিতি, গণসংগীত সমন্বয় পরিষদ, ছাত্রলীগ (জাসদ), শ্রমিক ফেডারেশন, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, গণমুক্তি, আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদ, নাগরিক ঐক্য, প্রাচ্যনাট, বিলস, বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রী, সাপ্তাহিক একতা, দেশটিভি, ছাত্র ফেডারেশন, ছাত্র ঐক্য ফোরাম, বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রী, ৭১-এর ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি, ঋষিজ শিল্পীগোষ্ঠী, ড্রাইভার্স ইউনিয়ন, সংযুক্ত শ্রমিক ফেডারেশন, পিটিবি নিউজ, সৎসঙ্গ ফাউন্ডেশন, বহুমুখী শ্রমজীবী সমিতি ইত্যাদি সংগঠন। আরও শ্রদ্ধা নিবেদন করেন অধ্যাপক আবুল কাশেম ফজলুল হক, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব সৈয়দ হাসান ইমাম, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রামেন্দু মজুমদার, ব্যারিস্টার আমির-উল ইসলাম, ঢাবির ভিসি আখতারুজ্জামান, ঢাবির সাবেক ভিসি আআমস আরেফিন সিদ্দিক, সাংবাদিক মনজুরুল আহসান বুলবুল, নাট্যব্যক্তিত্ব আশিস খন্দকার, নাট্য সংগঠক অধ্যাপক সামিনা লুৎফা নিত্রা, বাচিক শিল্পী ভাস্বর বন্দোপাধ্যায়, ভারতের বামপন্থী নেতা কমরেড অশোক ঘোষ প্রমুখ। শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা নিবেদনের পর বক্তব্য রাখেন সিপিবি’র সভাপতি কমরেড মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম, সাধারণ সম্পাদক কমরেড মো, শাহ আলম, কমরেড জসিম উদ্দিন মণ্ডলের বড় মেয়ে কমরেড সালেহা মনা। শ্রদ্ধা নিবেদন অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন সিপিবি’র প্রেসিডিয়াম সদস্য কমরেড আব্দুল্লাহ কাফি রতন ও উদীচী শিল্পী গোষ্ঠীর সাধারণ সম্পাদক কমরেড জামসেদ আনোয়ার তপন। সমবেত কণ্ঠে কমিউনিস্ট ইন্টারন্যাশনাল গাওয়া হয়। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদে প্রয়াতের জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। দুপুরে মরদেহ নিয়ে সিপিবি’র সহকারি সাধারণ সম্পাদক কমরেড সাজ্জাদ জহির চন্দনের নেতৃত্বে একটি দল কুষ্টিয়ার উদ্দেশে যাত্রা করেছে। কুষ্টিয়ায় শ্রদ্ধা নিবেদনের পর প্রয়াতের মরদেহ ঈশ্বরদীতে নিয়ে যাওয়া হবে। আগামীকাল ৪ অক্টোবর সকালে শ্রদ্ধা নিবেদন ও জানাজার পর ঈশ্বরদীতে কমরেড জসিম উদ্দিন মণ্ডলের দাফন হবে। এছাড়া আজ ৩ অক্টোবর সারাদেশে সিপিবি শোকদিবস পালন করেছে। সারাদেশের সিপিবি অফিসগুলোতে দলীয় পতাকা অর্ধনমিত ও কালো পতাকা উত্তোলন করা হয় এবং নেতা-কর্মীরা কালো ব্যাজ ধারণ করেন। বিভিন্ন স্থানীয় শোকর‌্যালি অনুষ্ঠিত হয়েছে।