Register or Login
সরকারের প্রতি হাওর কনভেনশনের আহ্বান হাওরের সকল জনমহালের ইজারা বাতিল করে জনসাধারণের মাছ ধরার জন্য উন্মুক্ত করে দিন
Facebook Twitter Google Digg Reddit LinkedIn StumbleUpon Email

বাংলাদেশের কমিউনিস্ট (সিপিবি) ও বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ আহুত আজকের ‘হাওর কনভেনশন’ এ সরকারের কাছে উপরোক্ত আহ্বান জানানো হয়। মণি সিংহ-ফরহাদ ট্রাষ্টের শহীদ তাজুল মিলনায়তনে দিনব্যাপী অনুষ্ঠিত এ কনভেনশনে বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির (সিপিবি)’র সভাপতি কমরেড মুজাহিদুল ইসলাম সেলিমের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ’র সাধারণ সম্পাদক কমরেড খালেকুজ্জামান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এমিরিটাস অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, মানবাধিকার কর্মী সুলতানা কামাল, লেখক-সাংবাদিক সৈয়দ আবুল মকসুদ, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জুনায়েদ সাকী, ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগের সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য অধ্যাপক আব্দুস সাত্তার, প্রকৌশলী ম. ইনামুল হক, কৃষি বিজ্ঞানী অধ্যাপক ড. মোঃ আনোয়ার হোসেন, বাপা সাধারণ সম্পাদক ডা. আব্দুল মতিন, তথ্যপ্রযুক্তি বিশেষজ্ঞ মোস্তফা জাব্বার, হাওর আন্দোলনের নেতা এডভোকেট হাসনাত কাইয়ূম, বিশিষ্টসঙ্গীত শিল্পী কফিল আহমদ, হাওর গবেষক হালিমদাদ খান, পরিবেশবিদ পাভেল পার্থ। হাওরবাসীদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সুনামগঞ্জের চিত্তরঞ্জন তালুকদার, মুক্তিযোদ্ধা আবু সুফিয়ান, ধনঞ্জয় পাল, আব্দুল বারেক, নেত্রকোনার গোলাম রাব্বানী, হাবিবুর রহমান, এমদাদুল হক শাহ রেন্টু, মৌলভীবাজারের জহর লাল দত্ত, কিশোরগঞ্জের লুৎফর রহমান, মোস্তফা জালাল মর্তুজ, হবিগঞ্জের পিযুষ চক্রবর্তী, এ আর সি কাউসার, কিশোরগঞ্জের এনামুল হক ইদ্রিস, নুরুল হক ভূইয়া। কনভেনশনে লিখিত বক্তব্য উত্থাপন করেন সিপিবি’র প্রেসিডিয়াম সদস্য কৃষক নেতা কমরেড সাজ্জাদ জহির চন্দন। কনভেনশন পরিচালনা করেন বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কমরেড বজলুর রশিদ ফিরোজ। সভাপতির বক্তব্যে কমরেড মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম বলেন, এ বছরে হাওরে মহা বিপর্যয় নেমে এসেছে। প্রায় ৯০ শতাংশ বোরো ধান নষ্ট হয়েছে। মাছ, হাঁসসহ জলজ প্রাণী মরেছে। ধান কাটতে না পারায় পশু খাদ্যের সংকট তীব্র হয়েছে। আগামী বোরো মৌসুমের আগে ধান আসবে না কৃষকের ঘরে ফলে খাবারের সংস্থান করা, ঋণ পরিশোধ করা, গরু-মহিষ-ছাগল, হাঁস-মুরগী বাঁচানো কৃষকের কাছে এক ভয়াবহ বিপদ হিসেবে আবির্ভুত হয়েছে। এর জন্য দায়ী যেমন অকাল অতি বর্ষণ তেমনি দায়ী

পানি উন্নয়ন বোর্ড, পিআইসি কর্মকর্তাদের গাফিলতি এবং ঠিকাদারদের দুর্নীতি। ফেব্রুয়ারি মাসে বাঁধ মেরামত করার কথা থাকলেও মার্চ মাসে মেরামতের কাজ শুরু করেনি ঠিকাদাররা। ফলে আগাম বন্যায় ডুবে গেছে হাওরের ৯ লাখ ৩০ হাজার হেক্টর জমির বোরো ধান, সর্বশান্ত হয়েছে ২৫ লক্ষ কৃষক পরিবার। তিনি ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের ব্যাংক, এনজিও ঋণ মওকুফ এবং আগামী বছর বিনা সুদে কৃষি ঋণ দেয়ার দাবি জানান। ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের স্বার্থে হাওরে এ বছরের জলমহালের ইজারা বাতিল করে ভাসান পানিতে জনসাধারণের মাছ শিকারের অধিকার নিশ্চিত করার দাবি জানান। তিনি আরো বলেন, ইজারাদারদের দিয়ে বাঁধ মেরামত না করে স্থানীয় জনগণকে অনুপ্রাণিত করে ‘জন ব্রিগেড’ গঠন করে বাঁধ মেরামত করলে এ ধরণের গাফিলতি ও দুর্নীতি থেকে সমাজ ও রাষ্ট্র মুক্তি পাবে এবং জনগণের চাহিদা ও সময়মত তা নির্মিত হবে। বাসদ সাধারণ সম্পাদক কমরেড খালেকুজ্জামান দিনব্যাপী আলোচনার সার সংক্ষেপ করতে গিয়ে বলেন, আগাম অতিবৃষ্টি আর মনুষ্যসৃষ্ট মহা বিপর্যয়ে হাওর অঞ্চলে ১১ হাজার কোটি টাকার ধান পানির নিচে তলিয়ে গেছে। দুই হাজার মেট্রিক টন মাছ নষ্ট হয়েছে। অবর্ণনীয় দুঃখ কষ্টের মধ্যে দিনাতিপাত করছে হাওরবাসী। তিনি বলেন, হাওর অঞ্চলের নদী ও খালগুলোর তলদেশ পলিতে ভরাট হয়ে গেছে। নদী খননের ঘোষণা ও বরাদ্দ থাকলেও যথাযথভাবে তা করা হচ্ছে না। দুর্নীতিবাজ আমলা ও সরকার দলীয় পরিচয়ে কাজ পাওয়া ঠিকাদারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সরকারের কাছে দাবী জানান। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এমিরিটাস অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, হাওরে প্রধান গুরুত্ব পাওয়া উচিত ছিল মৎস্য ও জলজ প্রাণী। সে গুরুত্ব দেয়া হযনি। ফলে হাওর উন্নয়ন নিয়ে দৃষ্টিভঙ্গিতে সংকট রয়েছে। তিনি বলেন, বাংলাদেশ রাষ্ট্রের প্রতিষ্ঠা এবং টিকে থাকার জন্য অবদান রেখেছে এবং রাখছে যে কৃষকরা, তারা আজ অবহেলিত। তাদের নিরাপত্তা বিঘ্নিত হচ্ছে রাষ্ট্রের দ্বারাই। রাষ্ট্র এখন জনগণের বিপরীতে দাঁড়িয়ে গেছে। ফলে জনগণের কর্তব্য হচ্ছে রাষ্ট্রকে উচ্ছেদ করা। তিনি বলেন, আমলা ও ঠিকাদারদের চক্রের কারণে হাওরবাসী আজকে এই মহাবিপদে পতিত হয়েছে। ফলে এদের উচ্ছেদ ছাড়া হাওরবাসীর মুক্তি নেই। তিনি আরো বলেন, এ কনভেনশনে যে দাবিগুলো উত্থাপিত হয়েছে সেগুলো নিয়ে আন্দোলন

Print প্রিন্ট উপোযোগী ভার্সন



Login to comment..
New user? Register..

© Copyright Communist Party of Bangladesh 2017. Beta